Bengali Essay on "A journey by bus", "বাস ভ্রমণ বাংলা অনুচ্ছেদ রচনা" for Class 5, 6, 7, 8, 9 & 10

Admin
0
Essay on A journey by bus in Bengali Language: In this article, we are providing বাস ভ্রমণ বাংলা অনুচ্ছেদ রচনা for students. Bengali Essay/Paragraph on A journey by bus.

Bengali Essay on "A journey by bus", "বাস ভ্রমণ বাংলা অনুচ্ছেদ রচনা" for Class 5, 6, 7, 8, 9 & 10

সেটা ছিল রবিবারের সকাল, আমার বন্ধু অজয় শাহদরায় বাস করে, আমি তার বাড়িতে যাব বলে ঠিক করেছিলাম। আমি অশােক বিহারের বাসিন্দা, আমার বাড়ি থেকে তার বাড়ি বেস খনিকটা দূরে অবস্থিত। অটোতে গেলে কম পক্ষে দুশাে টাকা লাগবে, এই ভেবে আমি ডিটিসি বাসেই যাওয়ার সিদ্ধান্ত করলাম। কারণ এতে করে আমি সম্পূর্ণ রাস্তাটাই মাত্র দশটাকার বিনিময়ে যেতে পারব। আমি বাস স্টপে গিয়ে সেখানে প্রচণ্ড ভিড় দেখতে পেলাম। বাস আসছে দেখে তারা যে যার মতন ধাক্কা দিতে শুরু করেছিল। বাসটিতে প্রচণ্ড ভিড় ছিল এবং কিছুলােক গেটের বাইরে ঝুলছিল। সৌভাগ্যবানেরা পা রাখার স্থান পেলেও বাকি ব্যাপারটা ভগবানের উপর ছেড়ে দিয়েছিল। ভেতরের লােকেরা ধাক্কাধাক্কি না করলেও, যে সমস্ত যাত্রী আমাদের পরে বাসটিতে উঠেছিল তারা প্রচণ্ড চাপ দিচ্ছিল। ওটি ছিল রবিবার, ছুটির দিন তাই প্রতিটি মানুষই ২৫ টাকার সাহায্যে সম্পূর্ণ দিনটা কাটাবার চেষ্টা করছিল। বেসরকারি বাসগুলি সেই দিনটাকে ছুটির দিন হিসাবে পালন করছিল। প্রতি মুহূর্তে ভিড় বৃদ্ধি পাচ্ছিল। আমি বাসটিতে ওঠার সাথে সাথেই কয়েকজন ধাক্কা দিয়ে ভেতরে ঠুকিয়ে দিয়েছিল। বাসটিতে বসার জন্য মাত্র পঞ্চাশটা স্থান থাকলেও বাসটির মধ্যে প্রায় শতাধিক লােক ছিল। যে সমস্ত যাত্রীদেরকপালে সিট জোটেনি তারা দাঁড়িয়েছিল। মহিলাদের জন্য আটটা সিট সংরক্ষিত করে রাখা থাকলেও সেই আসনগুলিতে কিছু যুবক বসে ছিল। এক বৃদ্ধা তাদেরকে এই সিট খালি করার জন্য অনুরােধ করলে ছেলেগুলি মুখ ফিরিয়ে নেয় এবং এমন ভাব দেখায় যে তারা কিছু শুনতে বা দেখতে পায় না। বাসের বাইরে বেরাননা খুব সহজ কাজ ছিল না।
আমার গন্তব্য প্রায় এসে পড়েছিল। আমি বেরবার জন্য ধাক্কা দিতে শুরু করেছিলাম। হঠাৎ করে যেন মনে হল কেউ আমার পকেটে হাত দিচ্ছে। আমি সেটিকে রক্ষা করার চেষ্টা করেছিলাম কিন্তু ততক্ষণে পার্সটা চুরি হয়ে গেছিল। আমি সম্পূর্ণ বােকা হয়ে গেছিলাম কারণ এই পার্সে টিকিট ছিল।
আমি চিৎকার করে উঠি এবং ড্রাইভারকে বাসটি থানায় নিয়ে যেতে বলি। ইতিমধ্যে আমার গন্তব্যস্থল এসে পড়েছিল। সে বলেছিল আর কিছু করার নেই কারণ পকেটমার ততক্ষণে বাস থেকে নেমে গেছিল। আমি ডিটিসি বাসে চড়ে জীবনের নূতন অভিক্ষতা প্রাপ্ত করেছিলাম।

Post a Comment

0Comments
Post a Comment (0)

#buttons=(Accept !) #days=(20)

Our website uses cookies to enhance your experience. Learn More
Accept !